Bubly: কলকাতায় এসে মন মাতালেন বুবলী, পা রাখছেন টলিউডে

বাংলাদেশের বাণিজ্যিক ছবি দেখেন, অথচ শবনম বুবলীকে চিনবেন না, একথা ভাবাই যায় না। এবার বাংলাদেশের গণ্ডি পেরিয়ে ভারতে পা রাখলেন বুবলী। এপার বাংলার দুই তাবড় অভিনেতার সঙ্গে তিনি অভিনয় করতে চলেছেন তাঁর নতুন ছবি ‘ফ্ল্যাশব্যাক’-এ।

গতকাল, ১৪ই জানুয়ারি, কলকাতায় ছিল এই নতুন ছবির প্রেসমিট। আর তাতে যোগ দিয়েই সকলের মন কাড়লেন তিনি। সেখানে অভিনেত্রী শবনম বুবলী জানিয়েছেন, বাংলাদেশে তিনি কলকাতার নির্মাতাদের সঙ্গে কাজ করেছেন, এপার বাংলাতেও অ্যাডশ্যুটের জন্য কাজ করেছেন তিনি। কিন্তু টলিউডে তাঁর প্রথম ছবি এটিই। তাঁর ২০২৪-এর সিনেমার যাত্রাও শুরু হচ্ছে টলিউড ইন্ডাস্ট্রি দিয়ে। ছবির পরিচালক রাশেদ রাহা জানিয়েছেন, ‘আমি যখন নিজের জীবনের ফ্ল্যাশব্যাকের ঘটনাগুলো ভাবছিলাম, সেটা পাহাড়েই ভাবছিলাম। আর সেই পাহাড়েই এই ছবির মূল চিত্রনাট্যটা লেখা।’

নতুন এই ছবিতে বুবলীর সঙ্গে দেখা যাবে অভিনেতা কৌশিক গাঙ্গুলী এবং অভিনেতা সৌরভ দাসকে। এর আগে সৌরভ বাংলাদেশী অভিনেত্রী মিথিলার সঙ্গে কাজ করেছেন। কিন্তু বুবলীর সঙ্গে কাজ করছেন এই প্রথম। ছবির চিত্রনাট্য ও সংলাপের দায়িত্বে ছিলেন খায়রুল বাসার নির্ঝর। ‘ব্লু হোয়েল এন্টারটেইনমেন্ট’ এবং ‘বিগ আর এন্টারটেইনমেন্ট’ প্রযোজিত এই ছবির কাহিনী লিখেছেন রাশেদ রাহা ও খায়রুল বাসার নির্ঝর।

সাইকোলজিক্যাল থ্রিলার এই ছবির প্রধান চরিত্রে, একসময়ের মঞ্চ নাটকের স্বনামধন্য অভিনেতা অঞ্জনের চরিত্রে দেখা যাবে কৌশিক গাঙ্গুলীকে। মঞ্চে এখন আর অভিনয় করেন না অঞ্জন, করেন বাস্তবে। সিনেমাপ্রেমী মানুষটি হঠাৎ উপলব্ধি করেন, তাঁর জীবন থেকে যেন হারিয়ে গিয়েছে পঁচিশবছর। অন্যদিকে, অভিনেত্রী শবনম বুবলী এ ছবিতে অভিনয় করছেন একজন ছবিনির্মাতার চরিত্রে। সৌরভ দাসকে এ ছবিতে একজন ভবঘুরের ভূমিকায় দেখা যাবে। ছবির আরেক বড় চরিত্র হিসেবে রয়েছে পাহাড়। তাই অনেকটা শ্যুটিংই হতে চলেছে উত্তরবঙ্গের পাহাড়ে।

এই ছবির একটি গানের সঙ্গীত পরিচালনার দায়িত্বে আছেন সুরজিৎ চট্টোপাধ্যায়। গানটি গাইবেন সুরজিৎ চট্টোপাধ্যায় স্বয়ং এবং গায়িকা ইমন চক্রবর্তী। যত তাড়াতাড়ি সম্ভব শ্যুটিং শেষ করে ছবিটি বড়পর্দায় আনাই তাঁদের ইচ্ছে, জানিয়েছেন পরিচালক।

 

Author

  • Debasmita Biswas

    বেথুন কলেজ থেকে উদ্ভিদবিদ্যায় স্নাতক। পড়ার নেশা ছোট থেকে, প্রাথমিকভাবে লেখালেখির শুরু শখেই। তারপর সংবাদপত্র, পত্র-পত্রিকায় সমালোচনা পড়ার অভ্যাস আর বিভিন্ন নাটক, সিনেমা দেখার পর বিশ্লেষণ করার শখ থেকেই ইচ্ছে সমালোচক হওয়ার। বিনোদনজগতের বিভিন্ন খবর করার পাশাপাশি নাটক এবং সিনেমা দেখে তার গঠনমূলক সমালোচনাও করেন তিনি।

Scroll to Top